সোমবার, ০১ মার্চ ২০২১, ০৪:২২ অপরাহ্ন
১৬ ফাল্গুন, ১৪২৭

সংবাদ শিরোনাম:
দেশে করোনায় আরও ৮ মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৫৮৫ মুশতাকের মৃত্যুর কারণ তদন্তে বেরিয়ে আসবে: তথ্যমন্ত্রী করোনা আমাকে একরকম বন্দি করে দিয়েছে: প্রধানমন্ত্রী উইন্ডোস ১০ এর কী-বোর্ডের গুরুত্বপূর্ণ ২০টি শর্টকাট ২০২৪ সালে নির্বাচনে লড়বেন ট্রাম্প ফেরিতে উঠতে গিয়ে ট্রাক পদ্মায়, চালক নিহত বরিশালে ফেনসিডিল কারবারির যাবজ্জীবন কারাদণ্ড মাদকের টাকা না পেয়ে মাকে হত্যা করলো মেয়ে! চার ম্যাচ পর অবশেষে জিতল চ্যাম্পিয়নরা প্রতিরোধ ক্ষমতা দুর্বল হয়েছে বুঝবেন কীভাবে কদমে কদমে গোনাহ মাফের ইবাদত ও আমল বিশ্বে করোনায় মৃত্যু বেড়ে ২৫ লাখ ৩০ হাজার শুরু হলো অগ্নিঝরা মার্চ বিক্ষোভে উত্তাল মিয়ানমার, পুলিশের গুলিতে নিহত-১৮ বরিশাল সফরে যেতে পারেন নরেন্দ্র মোদি আজ থেকে চাঁদপুর পদ্মা-মেঘনায় অভয়াশ্রম দশমিনায় নাবালিকা মেয়ের বিয়ে, গ্রেফতার-১ তারেক রহমানের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা নিউজিল্যান্ডের অকল্যান্ডে আবারও লকডাউন তানভীরের ১৩ শিকার, আড়াই দিনেই জিতে গেল বাংলাদেশ
Dr. Ali Hasan
Dr. Jahidul Islam
এলজিইডির আরবিআরপি প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলীর বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ

এলজিইডির আরবিআরপি প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলীর বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ

গোলাম কিবরিয়া, বরগুনা।।
স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) এর আয়রণ ব্রিজ সংস্কার প্রকল্প পরিচালকের কার্যালয় কর্মরত নির্বাহী প্রকৌশলী আহম্মেদ আলীর বিরুদ্ধে শত কোটি টাকার দুর্নীতির অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে বরগুনা ঠিকাদার বৃন্দ।

বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) দুপুরে বরগুনা সাংবাদিক ইউনিয়ন কার্যালয় লিখিত অভিযোগ পাঠ করেন ঠিকাদার গাজী ফারুক আহম্মেদ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, ঠিকাদার গাজী সোহেল, জিএম হাসান, মামুন হাওলাদার, মোয়াজ্জেম খান ও মিরাজ।

লিখিত অভিযোগে জানা যায়, বরগুনা এলজিইডির কতিপয় অসাধু ঠিকাদার বাদল খান, শহিদ খান, নিজাম তালুকদার ও আলমাস খান আমতলী উপজেলায় ৯৬ কোটি টাকার ভুয়া আয়রণ ব্রীজ দেখিয়ে তার সংস্কারের টেন্ডার তৈরী করে ঢাকা আইবিআরপি প্রকল্পের কার্যালয় বরগুনা থেকে প্রেরণ করায়। অথচ আমতলীতে ওই সব ব্রীজের কোন অস্তিত্ব খুজে পাওয়া যায়নি।

ঠিকাদাররা আরও অভিযোগ করেন, ওই প্রকল্পের সঙ্গে জড়িত রয়েছেন, পরিচালক আবদুল হাই, নির্বাহী প্রকৌশলী নাজমুল হুদা, আমতলী উপজেলা প্রকৌশলী আতিয়ার রহমান, আমতলীর উপসহকারী প্রকৌশলী সাইফুল ইসলাম, হিসাব রক্ষক আনছার আলী। ওই প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলী আহম্মেদ আলী এই জাতীয় ভুয়া প্রকল্প সৃষ্টি করে শত শত কোটি টাকা দুর্নীতি করেছে। তারমত একজন দুর্নীতি বাজ অফিসার প্রকল্প পরিচালক হলে গোটা জাতি ক্ষতিগ্রস্থ হবে।

তারা আরও বলেন, ওই প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলী আহম্মেদ আলী কিছু দিনের মধ্য প্রজেক্ট পরিচালক হতে যাচ্ছেন। তিনি যদি প্রকল্প পরিচালক হন তাহলে সরকারের মারাত্মক ক্ষতি হবে। ক্ষতি হবে বরগুনার সাধারণ ঠিকাদারগণ।

বক্তারা বলেন, আহম্মেদ আলীর মত দুর্নীতিবাজ অফিসারকে চাকরী থেকে অনেক আগেই বিদায় করা উচিৎ ছিল। ঠিকাদার নিজাম উদ্দিন তালুকদার বলেন, ভুয়া প্রকল্প ব্যাপারে আমি কিছু জানি না। আমার লাইসেন্সে ভুয়া প্রকল্পে কয়েকজন ঠিকাদার টেন্ডারে অংশ গ্রহন করেছে। একটি জাতীয় দৈনিকে ওই নিউজ ছাপা হলে সেই সব প্রকল্প সরকার বাতিল করে দেয়।

অভিযুক্ত আহম্মেদ আলী বলেন, আমি এ ব্যাপারে কিছু জানি না। আমি খুব ব্যস্ত আছি। আপনাদের সাথে পরে কথা বলব।

দ্রুত নিউজ পেতে নিচের লাইক বাটনে ক্লিক করে সি ফাস্ট করে রাখুন
নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

royal city hospital



© All rights reserved © 2019 rupalibarta.com
Developed By Next Barisal