Menu
Menu

ঘূর্নিঝড় আমফান: বরগুনায় নদীর পানি ৬ ফুট বৃদ্ধি পেয়েছে

Share on facebook
Share on google
Share on twitter

গোলাম কিবরিয়া, বরগুনা।।
বরগুনা জেলার পায়রা, বলেশ্বর ও বিষখালী প্রধান তিনটি নদীতে জোয়ারের পানির উচ্চতা বৃদ্ধি পেয়েছে। নদী তীরের বাসিন্দারা বলছেন নদীতে ইতোমধ্যেই স্বাভাবিকের তুলনায় ৫ থেকে ৬ ফুট পানি বেড়েছে।

বরগুনার বাইনচটকি ফেরিঘাট এলাকার বাসিন্দা আল আমিন বলেন, বিষখালী নদীর এই এলাকায় জোয়ারের পানি এতটাই বৃদ্ধি পেয়েছে ফেরির গ্যাংওয়ে সংযোগ সড়ক তলিয়ে গেছে। জোয়ারের উচ্চতা স্বাভাবিকের থেকে ৫ থেকে ৬ ফুট বেশি না হলে এখানে সাধারণত পানি ওঠে না।

তালতলী উপজেলার পচাকোড়ালিয়ার ফয়সাল সকদার বলে,পায়রা নদীতে প্রচণ্ড ঢেউ শুরু হয়েছে, সঙ্গে সঙ্গে জোয়ারের উচ্চতাও বৃদ্ধি পেয়েছে অনেক। এই উচ্চতা বেড়েই চলছে। পানির উচ্চতা এভাবে বৃদ্ধি পেতে থাকলে এই এলাকার বেড়িবাঁধ ভেঙে লোকালয় পানিতে তলিয়ে যাবে। তিনি আরো বলেন,স্বাভাবিকের তুলনায় নদীতে অনেক পানি বেড়েছে। আর একটু পানি বৃদ্ধি পেলেই আমাদের ঘরবাড়ী পানিতে তলিয়ে যাবে।

এ বিষয়ে বরগুনার পানি উন্নয়ন বোর্ডের পানি পরিমাপক মো. মাহতাব হোসেন বলেন, আজ বুধবার (২০ মে) সকাল ৯টায় বরগুনায় জোয়ারের উচ্চতা ছিল ২.৮৫ সেন্টিমিটার। যা বিপদসীমার সমান সমান। আর এক ঘণ্টার ব্যবধানে সকাল ১০টায় বরগুনায় জোয়ারের পানির উচ্চতা বৃদ্ধি পেয়েছে ৩.১০ সেন্টিমিটার হয়েছে। তিনি আরও বলেন, এই মুহূর্তে বরগুনার প্রধান তিনটি নদীতে বিপদসীমার ২৫ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হচ্ছে।

সর্বশেষ